৯০ দশকে ক্যাসেট বা সিডি বিক্রির উপরেই নির্ভর করতো একজন শিল্পীর খ্যাতি। একজন শিল্পী তার কণ্ঠের মাধ্যমে কোটি দর্শকের মন কেড়ে নিতো। যার ফলে লাভবান হতো শিল্পী ও মিউজিক কোম্পানি গুলো। দিন বদলেছে। এখন শিল্পীর যোগ্যতার মানদণ্ড বিচার হচ্ছে ইউটিউবে তাঁর গানের ভিউ লাখ না কোটি। আসলেই কি এটা হতে পারে যোগ্যতার মাপকাঠি?

গান বাংলার মানুষের আত্মার খোরাক বলা চলে।এই বাংলার মাটিতে জন্ম হয়েছে অনেক বরেণ্য শিল্পীর। তারা সকলেই মৃত্যুর শেষ মুহূর্ত পর্যন্ত এই বাংলা গানের বন্দনা করেই চলে গেছেন পৃথিবীর মায়া ত্যাগ করে। শ্রদ্ধেয় আব্দুল আলিম, লালন শাহ, বাউল আব্দুল করিম, হাসান রাজা সহ অনেক গুণী ব্যাক্তিরাই পৃথিবী ছেড়ে গেছেন কিন্তু তাদের রেখে যাওয়া শব্দ গুলো এখনো বাংলার প্রতিটি তরুনের মনে দাগ কাটে। তাদের গান গুলোকে ঘিরেই বর্তমান সময়ের মানুষের কৌতূহল।এই মানুষগুলো মরে গেলেও মরেনি তাদের গান। কালে কালে অনেক শিল্পী এসেছেন, যারা এই মানুষগুলোর গানকে চিরঞ্জিবীত রেখেছেন। দেখতে দেখতে সময়ের অনেক পরিবর্তন এসেছে। এসেছে গানের ধারার ও পরিবর্তন। আর সেই সাথে পরিবর্তন এসেছে গান শোনার মাদ্ধমে। একটা সময় মানুষ গান শুনতো রেডিও, টেপ রেকর্ডার ও টেলিভিশন এর মাদ্ধমে। আজ এমন একটা সময় যখন মানুষ গান শোনে ইউটিউবের মাদ্ধমে। আর এই পরিবর্তনকে ঘিরে তৈরী হয়েছে বাংলার অনেক শিল্পীদের মতবিরোধ। অনেকেই মনে করেন ইউটিউবের মাদ্ধমে মানুষ গান শোনে কম দেখে বেশি। ফলে মানুষ গানের মান যাচাই না করেই শুধু ব্যায়বহুল মিউজিক ভিডিও গুলোই দেখে। ফলে যেটি হচ্ছে ভিডিও গুলোর ভিউ দেখেই ভালো মন্দ বিচার করা হয়। কিন্তু তাদের প্রশ্ন হচ্ছে তাতে কি গানের মান যাচাই করা সম্ভব হয় ?

অন্যদিকে আরেক দল বলছেন, ইউটিউবের মাদ্ধমে অনেক তারুণ্যের উদ্ভাবন হচ্ছে যারা আজ ইউটিউবের মাদ্ধমে মিউজিক জগতে রাজ্ করছে, এদের মধ্যে অনেকেই গুণী শিল্পীও বটে। তারা যদি আজ ইউটিউবের মতো মাদ্ধম না পেতো তাহলে কি মিউজিক কোম্পানি অথবা এই গুণী শিল্পীরা এই তারুণ্যকে কোনোদিন সুযোগ দিতো। এই ইউটিউবের মাদ্ধমে তরুণরা কি তাদের মেলে ধরার সুযোগ পাচ্ছে না ? এই দ্বন্দ্ব সম্পর্কে শ্রোতা হিসেবে আপনার কি মতামত সেটি আপনিও জানাতে পারেন আমাদেরকে।

 

বাংলা গানের lyrics গুলো পেতে Visit করুন : Lyricsbd.com

Lyricsbd is one of the best Music lyrical Website of Bangladesh . Don’t forget to Connect with them for latest update.

 

 

 

Added by

admin

SHARE

Your email address will not be published. Required fields are marked *